নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হতে পারে


নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হতে পারে

নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হতে পারে

 

আসসালামুআলাইকুম বন্ধুরা আশা করি সবাই ভাল আছেন। বেশ কিছুদিন ধরে আপনারা আমাকে একটা প্রশ্ন করছেন নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হবে আজকে এই প্রশ্নটা বিস্তারিত উত্তর দেবো। এ কাজটি করলে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের আসলেই অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যায়। বিস্তারিত জানার জন্য সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে পড়ুন। আমি মনে করি এই বিষয়টা ছোট-বড় সব ধরনের ইউটিউব আরে জানা প্রয়োজন। তাহলে চলুন বেশি কথা না বলে শুরু করা যাক।

 

আমরা যখন নতুন ইউটিউবিং শুরু করি তখন কিন্তু ইউটিউব নিয়মকানুন সম্পর্কে বেশি ধারণা থাকেনা। এই কারণে দেখা যায় নতুন ইউটিউবাররা বেশিরভাগ সময় ছোট-বড় ভুল করে থাকে। যখনই একটা নতুন ইউটিউব চ্যানেল খোলা হয় সাথে সাথে কিন্তু হাজার হাজার সাবস্ক্রাইবার ও হাজার হাজার ভিউ আসে না। তখন কিছু নতুন ইউটিউবার ভুলবশত নিজের ভিডিও নিজেই দেখে ভিউ বাড়ায় পাশাপাশি নিজের ভিডিও নিজেই দেখে ওয়াচ টাইম বাড়ায়। এই কাজটা মূলত নিজের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে অথবা বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে করে থাকে।

 

এই কাজটির যখন আপনি করবেন সাথে সাথে হয়তো কিছু ওয়াচটাইম ও কিছু ভিউ চলে আসবে। এই কাজটি করে নিজেরা নিজেদের ক্ষতি করে থাকি নিজেরাই নিজেদের পায়ে কুড়ুল মারি। কিছু মানুষ আছে আবার আরেক ধাপ এগিয়ে মানি তাদের চ্যানেল মনিটাইজেশন অন হওয়ার পরেও বাড়তি কিছু ইনকামের জন্য এই কাজটি করে থাকে। এই কাজটা হলো আরো বেশি ভয়ঙ্কর আমি মনে করি এটা পায়ে কুড়ুল মারা নয় কুড়ুলে গিয়ে পাও মারার মতন কথা। বিষয়গুলো শুনতে হয়তো আপনার কাছে খারাপ লাগতে পারে।

 

আরো বিস্তারিত জানার জন্য নিচের ভিডিওটি মনোযোগ দিয়ে সম্পূর্ণ দেখুন। নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হবে এই বিষয়টি সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা নিচের ভিডিওটিতে দেওয়া আছে। তাহলে এখনি দেরি না করে নিচের ভিডিওটি মনোযোগ দিয়ে সম্পূর্ণ দেখুন। ভিডিওটি আপনার কাছে কীরকম লেগেছে অবশ্যই নিচে কমেন্টের মাধ্যমে আপনার মূল্যবান মতামত জানাবেন।

 

 

ক্ষতির দিকগুলো তুলে ধরা হলো

 

এখন কথা বলা যাক ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হতে পারে। আপনি যদি নিজের ভিডিও নিজের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে অথবা বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে বারবার দেখেন তাহলে আপনার ভিডিওকে লো-কোয়ালিটির প্লেব্যাক আলতা রাখা হবে। আমি বিষয়টাকে আরও সহজ ভাবে বুঝিয়ে বলছি। আমরা যে জিমেইল দিয়ে আমাদের ইউটিউব চ্যানেল পরিচালনা করি ওই জিমেইল কিন্তু আমাদের কম্পিউটার ও মোবাইলে ব্যবহার করে। এর ফলে আমাদের মোবাইল ও কম্পিউটারের আইপি অ্যাড্রেস ইউটিউব এর কাছে চলে যায়।

 

এই কারণে ইউটিউব আইডেন্টিফাই করতে পারে আমাদের মোবাইল কয়টা অথবা আমাদের কম্পিউটার কয়টা তাছাড়া ইউটিউব এর কাছে আরো অনেকগুলো পদ্ধতি আছে। তাছাড়া এই বিষয়টার জন্য ইউটিউবে কাছে আরো অনেক পদ্ধতি আছে। ইউটিউব কিন্তু এই পুরো বিষয়টাকে কখনোই ভালোভাবে নেয় না। এই কারণে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের সবগুলো ভিডিওকে ইউটিউব এর পক্ষ থেকে ভিডিওকে লো-কোয়ালিটির প্লেব্যাক আলতা রাখা


Related Post :- SUB 4 SUB কি


দ্বিতীয় ক্ষতি তুলে ধরা হলো (ভিডিওর ভিউ থামিয়ে দেওয়া, চ্যানেল বাতিল করা হবে) সহজ বাংলা ভাষায় আমি আপনাকে বুঝিয়ে বলছি আপনি যদি নিজের ভিডিও নিজের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে অথবা বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের মোবাইল কম্পিউটারের সাহায্যে বারবার দেখেন তাহলে আপনার ভিডিওর ভিউ থামিয়ে দেওয়া পাশাপাশি ইউটিউবে টিম আপনার চ্যানেলকে বাতিল করে দেবেন। অনেক ভয়ঙ্কর একটি বিষয় আমি মনে করি। ছোট-বড় সব ধরনের ইউটিউবার এই বিষয়টা থেকে সাবধান হওয়া প্রয়োজন।

 

নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে কি কি ক্ষতি হতে পারে এক কথায় যদি প্রশ্ন উত্তর দিতে চাই তাহলে বলবো অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যাবে আপনার ইউটিউব চ্যানেল। এই কাজটি যদি আপনি করে থাকেন তাহলে একটা কথা মাথায় রাখবেন যে আপনি কিন্তু ইউটিউব এর নিয়ম অমান্য করেছেন। আমরা সবাই একটা বিষয়ে জানি যে ইউটিউব এর নিয়ম অমান্য করলেই ইউটিউব এর পক্ষ থেকে ছোট অথবা বড় একটি শাস্তি দেওয়া হয় নির্দিষ্ট কিছু সময় অথবা সারা জীবনের জন্য। নিজের ইউটিউব ভিডিও বারবার দেখলে ইউটিউব এর পক্ষ থেকে বিশাল বড় একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য শাস্তি দেওয়া

 

আর্টিকেল লিংক :- ক্লিক হেয়ার  

 

আজকের এই আর্টিকেল সম্পর্কে আপনার যদি কোন প্রশ্ন থাকে অথবা মতামত থাকে অবশ্যই নিচের কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে জানাবেন। ইউটিউব সম্পর্কে আপনার যদি কোন প্রশ্ন থাকে অথবা কোন কিছু জানার প্রয়োজন হয় তাহলে অবশ্য নিচে কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে জানাবেন। আজকের এই আর্টিকেলটি আপনার কাছে যদি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই আপনি আপনার সকল ইউটিউবার বন্ধুদের কাছে ফেসবুকের মাধ্যমে শেয়ার করবেন। আপনার মূল্যবান সময় নষ্ট করে আমাদের ওয়েবসাইটের আর্টিকেলটি পড়ার জন্য ধন্যবাদ।

 


© 2020 bdyoutubecommunity.com
error: Content is protected !!