ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে?


ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে?

 

আজকে আমরা বিস্তারিত আলোচনা করব যে ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে। পাশাপাশি আজকে আমি আপনাদের মাঝে মূলত ৩২টি ইউটিউবে ভিডিও বানানোর সেরা কন্টেন্ট আইডিয়া শেয়ার করব। আজকে আমি আপনাদের মাঝে যেই ৩২টি কন্টেন আইডিয়ার শেয়ার করবো এই ৩২টি কন্টেন্ট আইডিয়া মধ্যে যেকোনো একটি কনটেন্ট আইডিয়ার উপর আপনি যদি সঠিকভাবে কাজ করতে পারেন তাহলে আপনি খুব সহজেই খুব দ্রুত একজন সফল ইউটিউবার হতে পারবেন। ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে? এই বিষয়ে বিস্তারিত জানার জন্য মনোযোগ দিয়ে সম্পূর্ণ আর্টিকেল পড়ুন আশা করি নতুন কিছু জানতে ও শিখতে পারবেন। তাহলে চলুন বেশি কথা না বলে শুরু করা যাক।

 

বর্তমান সময়ে আমরা সবাই কমবেশি জানি ইউটিউব বর্তমান সময়ে শুধু বিনোদন মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করা হয় না পাশাপাশি টাকা উপার্জনের একটি মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করা হয়। বর্তমান সময়ে যে কোন মানুষ ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করে প্রতি মাসে হাজার হাজার টাকা খুব সহজে উপার্জন করতে পারবে। ইউটিউব থেকে টাকা উপার্জন করার জন্য আমাদেরকে মূলত নির্দিষ্ট একটা ক্যাটাগরী অথবা বিভিন্ন ক্যাটেগরি উপরে নিয়মিত ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করতে হবে। বেশিরভাগ সময় দেখা যায় আমার মতন যারা নতুন ইউটিউবার আছে তারা এই বিষয়টা জানে না যে ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে অথবা কি কি বিষয় ভিডিও তৈরি করলে আমরা খুব সহজেই খুব দ্রুত সফলতা লাভ করতে পারব। নিচে আমি আপনাদের জন্য ৩২টি ইউটিউবে ভিডিও বানানোর সেরা কন্টেন্ট আইডিয়া শেয়ার করেছি আশাকরি আপনাদের অনেক বেশি কাজে লাগবে উপকারে আসবে

 

প্রথমে জানুন ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া কেন প্রয়োজন?

 

আপনি হাজারো ক্যাটাগরি হাজারো ধরনের কনটেন্ট এর উপরে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করতে পারেন তাতে কোন প্রকার সমস্যা হবে না। একটা বিষয় আমাদের সবসময় মাথা রাখতে হবে সবাই কিন্তু সব ধরনের ক্যাটেগরির উপরে ভিডিও বানাতে পারবে না। কিছু মানুষ রান্না করতে ভালোবাসে অথবা ভালো রান্না করতে পারে তারা কুকিং রিলেটেড ক্যাটেগরি উপরে ভিডিও বানাতে পারে। ঠিক তেমনি কিছু মানুষ আছে ভালো গেম খেলতে পারে অথবাগেম খেলাটাকে ভালোবাসি তারা মূলত গেম খেলার উপরে ভিডিও বানাবে অথবা গেমিং ক্যাটাগরির উপরে ভিডিও বানাবো। আপনি যেই বিষয় মোটামুটি এক্সপার্ট অথবা আপনি যে বিষয়ে দক্ষতা অর্জন করেছেন আপনি ওই বিষয়ের উপরে ইউটিউবে ভিডিও বানাবেন। প্রথমে আপনাকে ভালোভাবে চিন্তা ভাবনা করে বের করতে হবে যে আপনি কোন বিষয়ে এক্সপার্ট অথবা আপনি কোন বিষয়ে মোটামুটি ভালো দক্ষতা অর্জন করেছেন। আপনি যে বিষয় মোটামুটি ভালো দক্ষতা অর্জন করেছেন ওই ক্যাটাগরির উপরে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করলে আপনি খুব দ্রুত সফল হতে পারবেন। আরেকটা বিষয় আমাদেরকে ভালোভাবে মাথা রাখতে হবে আমরা যদি ভুল ক্যাটেগরি উপরে ভিডিও বানায় তাহলে কিন্তু আমরা ইউটিউবে কখনোই সফল হতে পারব না।

 

১। দৈনন্দিন জীবনের কর্ম নিয়ে কনটেন্ট

 

দৈনন্দিন জীবনে কি করলে ভালো হবে অথবা কি করা যেতে পারে এই ধরনের কনটেন্ট সাধারণত আপনি প্রতিদিন কি ধরনের কাজ করেন বাকি করতে পছন্দ করেন সেইসব সম্পর্কে আইডিয়া নিয়ে ভিডিও কনটেন্ট তৈরি করতে পারবেন। তবে এই সমস্ত কনটেন্টের সাথে আপনার কিছু শিক্ষানীয় বিষয় অন্তর্ভুক্ত করতে হবে। যেমন কোন ধরনের কাজ করলে আপনার দৈনন্দিন জীবনের পথ চলা সহজ হবে। বা কি করলে আপনি সহজেই সমস্যার সমাধান করতে পারবেন ইত্যাদি। আপনি চাইলে আপনার দৈনন্দিন জীবনের উপরে প্রতিনিয়ত ব্লক করতে পারেন যেটা বাংলাদেশের অনেক ইউটিউবার বর্তমান সময় করছে। পাশাপাশি বর্তমান সময়ে ঘটে যাওয়া ট্রেন্ডিং বিষয়ের উপর ভিডিও বানাতে পারেন যেটা আপনাকে গ্রহ করতে অনেক সাহায্য করবে।

 

২। টেকনিক্যাল অথবা গেজেট প্রডাক্ট রিভিউ

 

আপনি তাহলে আপনি ইউটিউব চ্যানেলে মোবাইল কম্পিউটার ইত্যাদি ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেট রিভিউ ভিডিও বানাতে পারেন। অথবা ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেটগুলো কিভাবে ব্যবহার করবো কিভাবে ব্যবহার করলে ভাল হবে এই সকল বিষয়ের উপর ভিডিও বানাতে পারেন। আপনি যদি ভাল মোবাইল রিভিউ ভিডিও বানাতে পারেন তাহলে আপনার ইউটিউব চ্যানেল খুব বড় করতে পারবেন পাশাপাশি অন্যান্য চ্যানেল থেকে বেশি টাকা উপার্জন করতে পারবেন। বর্তমানে বাংলাদেশের ইলেকট্রিক্যাল গেজেটের অভাব নেই আপনি যে কোন ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেটের উপরে ভিডিও বানাতে পারেন।

 

৩। কুকিং এক্সেসরিজ গ্যাজেট রিভিউ চ্যানেল

 

বাংলাদেশের বর্তমান সময়ে কুকিং এক্সেসরিজ গেজেটের চাহিদা অনেক বেড়ে গেছে। আপনি চাইলে কুকিং এক্সেসরিজ গ্যাজেটগুলো রিভিউ করতে পারেন অথবা কিভাবে ব্যবহার করবে অথবা কিভাবে ব্যবহার করবে এটা শেখাতে পারেন। পাশাপাশি কম দামের ভিতরে কোন কুকিং এক্সেসরিজ গ্যাজেটগুলো ভালো অথবা কোন কুকিং এক্সেসরিজ গ্যাজেটগুলো খারাপ এই সম্পর্কে বিস্তারিত ভিডিও বানাতে পারেন। আপনি যদি কুকিং এক্সেসরিজ গেজেট এর ওপরে ভিডিও বানান তাহলে আপনার ইউটিউব চালু খুব দ্রুত বড় করতে পারবেন। পাশাপাশি আপনি খুব সহজেই স্পন্সার শীপ পেয়ে যাবেন পাশাপাশি আপনি খুব সহজে অন্যান্য ক্যাটেগরি ইউটিউব চ্যানেল থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

৩। খেলাধুলার চ্যানেল

 

আপনি চাইলে খেলাধুলা বিষয়ক ভিডিও বানাতে পারেন অথবা খেলাধুলা বিষয়ক টিপস এন্ড ট্রিকস শেয়ার করতে পারেন। পাশাপাশি কোন খেলা গুলো আমাদের শরীরের জন্য ভালো আমাদের শরীরের জন্য খারাপ এই বিষয়ে আপনি শেখাতে পারেন। বর্তমানে বাংলাদেশের খেলাধুলা চাহিদা অনেকটাই কমে যাচ্ছে প্রতিনিয়ত। আপনি এমন খেলার ভিডিও বানাবেন যে খেলা গুলো ঘরে অথবা বাড়ির ছাদে খেলা যায় বাইরে যাওয়ার কোনো প্রয়োজন হয় না। আপনি যদি নিয়মিত অথবা ধারাবাহিকভাবে খেলাধুলার ভিডিও আপনার ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করতে পারেন তাহলে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলকে অনেক তাড়াতাড়ি বড় করতে পারবেন।

 

৪। শিক্ষণীয় ইউটিউব চ্যানেল

 

বর্তমান সময়ে ঘরে বসে সবে নতুন নতুন কিছু শিখতে চাই অথবা ঘরে বসে সবার পড়াশোনা করতে চায়। এই কারণে বর্তমান সময় লেখাপড়া শেখানোর ইউটিউব চ্যানেল গুলো চাহিদা অনেক বেশি। আপনি যদি মোটামুটি লেখাপড়া শেখানোর ভালো ভিডিও বানাতে পারেন তাহলে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেল টা কে খুব দ্রুতই অনেক বড় করতে পারবেন। লেখাপড়া শেখানো ভিডিওগুলো আপনি খুব সহজে বানাতে পারবেন প্রায় প্রতিদিন আপনি চাইলে একটা করে ভিডিও ইউটিউবে আপলোড করতে পারবে। ইনকাম তুলনামূলক খারাপ হবে না মোটামুটি ভালো ইনকাম করতে পারবেন।

 

৫। বিনোদনমূলক চ্যানেল

 

বাংলাদেশসহ সারাবিশ্বে বরাবরের মতন সবসময় বিনোদন ইউটিউব চ্যানেলের চাহিদা প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। আপনি যদি অন্য মানুষকে হাসাতে পারেন তাহলে বিনোদন চ্যানেল গুলো আপনার জন্য আপনি বিনোদন ইউটিউব চ্যানেল বানাতে। আপনি যদি মানুষকে ভালোভাবে বিনোদন দিতে পারেন অথবা হাসাতে পারেন তাহলে আপনি খুব সহজে ইউটিউব চ্যানেলটাকে অনেক বড় করতে পারবেন। বিনোদন অথবা মানুষকে হাসানোর ভিডিওগুলো বাড়ানোর তুলনামূলক একটু কঠিন যদি আপনি পারেন তাহলে চেষ্টা করবে।

 

৬। স্বাস্থ্য বিষয়ক চ্যানেল

 

আপনি যদি একজন মেডিকেল স্টুডেন্ট হয়ে থাকেন অথবা ডাক্তার হয়ে থাকেন তাহলে আপনার স্বাস্থ্য বিষয়ক ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারেন। বর্তমান সময়ে প্রত্যেকটা মানুষ ভালো থাকতে চায় এই কারণে প্রত্যেকটা মানুষ নিয়মিত স্বাস্থ্য বিষয়ে ইউটিউব চ্যানেলগুলোর ভিডিও দেখে। স্বাস্থ্য বিষয়ক টিপস এন্ড ট্রিকস ও কিভাবে ভালো থাকা যায় এই সকল বিষয়কে ভিডিও বানাতে পারেন আপনার ইউটিউব চ্যানেলে।

 

৭। রান্নাবান্না বা ফুড রেসিপি চ্যানেল

 

আপনি যদি মোটামুটি ভাল রান্না করতে পারেন ও রান্না করা শিখাতে পারেন তাহলে আপনি রান্না বিষয় ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারেন। বর্তমানে প্রত্যেকটা মাস প্রতিনিয়ত নতুন নতুন রেসিপি ট্রাই করতে চাই নতুন নতুন রেসিপি রান্না করা শিখতে চাই। এই কারণে নিয়মিত দেখা যায় নতুন নতুন ইউটিউব চ্যানেলে গিয়ে নতুন নতুন রান্নার রেসিপি আমরা সবাই শিখি। রান্না অথবা রেসিপি ক্যাটেগরির ইউটিউব চ্যানেল গুলোতে খুব দ্রুতই অনেক বড় করে তুলতে পারবেন। ইনকামের কথা যদি বলি তাহলে বললে মোটামুটি ভালো হয় কিন্তু আপনাকে মোটামুটি ভালই কষ্ট করতে হবে প্রথম দিক দিয়ে।

 

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে? আশা করি এই বিষয়টি নিয়ে আপনার কোন প্রকার সমস্যা থাকবে না তারপরও যদি কোন কারনে কোন সমস্যা থাকে তাহলে অবশ্যই নিচে ফেসবুক কমেন্ট এর মাধ্যমে আপনার সমস্যার কথা আমাদেরকে জানাতে পারেন। আপনার মূল্যবান সময় আমাদের ওয়েবসাইটে দেওয়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ। আবে যদি ইউটিউব বিষয়ে কোন কিছু জানার প্রয়োজন হয় অথবা কোন প্রশ্ন থাকে অবশ্যই আমাদের ফেসবুক পেজে গিয়ে আমার।

 

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

© 2019-2022 BDyoutubecommunity.com